• বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৩:২০ পূর্বাহ্ন

সংক্রমণ বৃদ্ধিতে আতঙ্ক চিনে, অবাধ বিচরণে একগুচ্ছ বিধিনিষেধ

Reporter Name / ৫৩ Time View
আপডেট টাইম : সোমবার, ২ আগস্ট, ২০২১
jhenidaherkantho
jhenidaherkantho

ফের করোনার বাড়বাড়ন্ত চিনে। সংক্রমণ রুখতে ভ্রমণের ক্ষেত্রে নতুন করে বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। চিনের একের পর এক পর্যটন শহর থেকে সামনে আসছে সংক্রমণের ঘটনা।

চিনের বেশ কয়েকটি শহরে ফের বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। যার জেরে এবার সতর্ক হল চিন প্রশাসন। সংক্রমণ মোকাবিলায়, বেশ কয়েকটি শহরে লাখ লাখ মানুষের করোনা পরীক্ষা শুরু হয়েছে। পাশাপাশি, ভ্রমণের ক্ষেত্রেও নতুন বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে।

রবিবারও চিনে ৭৫টি নতুন কেস সামনে এসেছে, এর মধ্যে আরও ৫৩টি লোকাল সংক্রমণের ঘটনা সামনে এসেছে। ফলে আতঙ্ক বাড়ছে চিনে। শুরুর দিকে চিনে সংক্রমণ কিছুটা নিয়ন্ত্রণে থাকলেও ফের একবার চিনে চোখ রাঙাচ্ছে করোনাভাইরাস।

জিয়াংসু, সিচুয়ান, বেজিং, উজিয়ান প্রদেশ ইত্যাদি এলাকায় সংক্রমণ ছড়াচ্ছে নতুন করে। প্রসঙ্গত, এর আগে জিয়াংসুর আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ১০ জন সাফাইকর্মী ২০ জুলাই করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন। সেখান থেকেই সংক্রমণ আবার ছড়িয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে।

চিনা বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন, ডেল্টা ভেরিয়েন্টের জেরেই নতুন করে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়েছে। পাশাপাশি পর্যটকদের আনাগোনার জন্যেই বেড়েছে সংক্রমণের মাত্রা। এই ডেল্টা ভেরিয়েন্ট এখন চিনের সবচেয়ে বড় মাথা ব্য়াথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

চিনের হুনান প্রদেশের নানজিং বা ঝাংজিয়াজি একটি পর্যটন শহর। সংক্রমণ বৃদ্ধি রুখতে লকডাউন রয়েছে এই এলাকা। করোনা নিয়ন্ত্রণে আনতে এবার ওই পর্যটন এলাকায় ভ্রমণকারী, সমস্ত পর্যটকদের খোঁজ করতে শুরু করেছে চিনা আধিকারিকরা।

পাশাপাশি বিপদ বাড়িয়ে রবিবার হাইনান আইসল্যান্ড থেকেও করোনা সংক্রমণের এই ঘটনা সামনে এসেছে। এই হাইনান আইসল্যান্ডও চিনের একটি অন্যতম পর্যটন কেন্দ্র। করোনা রুখতে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার পাশাপাশি টিকা দেওয়ার উপরেও জোর দেওয়া হয়েছে চিনে।

প্রসঙ্গত, ২০১৯-এ চিনের উহান প্রদেশে ছড়িয়েছিল করোনা সংক্রমণ। তবে সেবার লকডাউন ও কড়া বিধিনিষেধের মাধ্যমে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে চিন। এবার ডেল্টা ভেরিয়েন্টকে কী ভাবে রোখা যায়, সেই ছক কষতেই ব্যস্ত আধিকারিকেরা।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category

Ads 1